Thursday , August 17 2017
Home / টেকটিউনস / ডেক্সটপ ও লেপটপ থাকবে ভাইরাস মুক্ত চিরতরে।
working

ডেক্সটপ ও লেপটপ থাকবে ভাইরাস মুক্ত চিরতরে।

যারা কম্পিউটার বা ল্যাপটপ ব্যবহার তাদের জন্য বড় সমস্যা ভাইরাস। কম্পিউটারে ভাইরাস লাগলে কি যে সমস্যা হয় তা বোঝা যায় যাদের কম্পিউটার বা ল্যাপটপে লেগেছে। এত চিন্তা কিসের আসুন সমাধাণটা জেনে নেই যাতে আর কম্পিউটার বা ল্যাপটপে ভাইরাস না লাগে।

১। আপনি যখন কম্পিউটারে পার্টিশন অন্ততপক্ষে ২০% জায়গা ফাকা রাখবেন।

২। প্রতিদিন একবার হলেও ডিফ্র্যাগ করতে হবে।এত হার্ডডিক্সে জায়গা এলোমোলো না থেকে সমান ভাবে থাকবে।

৩।প্রতি সপ্তাহে বুট টাইম ডিফ্র্যাগ করতে হবে। পেজফাইল, হিবারফিল সহ সিষ্টেম ফাইল ডিফ্র্যাগ করুন।

৪। ক্রিটিকাল তাপমাত্র সেট করুন যাতে করে বেশি গরম হলে আপনি নোটিফিকেশন পান।এটি দেখাবে কতটুকু গমর হল।

৫।কম্পিউটার বা ল্যাপটপকে ধুলাবলি থেকে ১০০ গজ দূরে রাখুন। ছোট্ট একটা ধলি কণা আপনার মাথায় চুলের দশভাগের একভাগও যদি আপনার হার্ডডিক্সের হেড নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

৬। ডেক্সপট কম্পিউটারে ইউপিএস ব্যবহার করুন।

৭। বছরে একবার বা দুইবার হার্ডডিক্সের সকল ফাইল অন্যকোথাও বেকাপ করে হার্ডডিক্স ফরমেট করুন। এতে আপনার হার্ডডিক্স ভালো থাকবে।

৮।প্রতি ৩মাস পরপর কম্পিউটারে উইন্ডোস দিন।

৯।উইন্ডোজ এর ইনডেক্সিং বন্ধ করে দিন। ইনডেক্সিং এর মাধ্যমে উইন্ডোজ হার্ডডিক্সের সকল ফাইল এর লিষ্ট তৈরি করে এবং সার্চ করলে দ্রুত ফলাফল দেখায় এতে অযথাই ডিক্সে ঘুরতে থাকে এবং শক্তি বা ব্যাটারী ক্ষয় হয়।

১০।হার্ডডিক্সে এর এটিএ কেবল এর পাওয়ার কেবল মজবুত ভাবে লাগানো আছে কিনা তা দেখে নিন। না থাকলে মজবুত করে লাগিয়ে নিন। এটি যদি ঢিলা হয় তাহলে হার্ডডিক্সে ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

PaidVerts

Check Also

teaserbox_294153

পেপ্যাল আসছে বাংলাদেশে

আন্তর্জাতিক অনলাইন লেনদেন ব্যবস্থা পেপ্যালের সঙ্গে চুক্তি করেছে রাষ্ট্রমালিকানাধীন সোনালী ব্যাংক। ফলে আগামী মাস থেকেই ...